ঢাকা, সোমবার, ফেব্রুয়ারী ২৬, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ | ১৪ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ
alo
alo

২ আসামিদের পলায়ন: হামলার নেতাকে 'শনাক্ত' করা হয়েছে

নিজস্ব প্রতিবেদক

প্রকাশিত: ২৬ ফেব্রুয়ারী, ২০২৪, ১২:০১ পিএম

alo
২ আসামিদের পলায়ন: হামলার নেতাকে 'শনাক্ত' করা হয়েছে
alo
গতকাল ঢাকার আদালত প্রাঙ্গণ থেকে মৃত্যুদণ্ডপ্রাপ্ত দুই আসামিকে তাড়ানোর জন্য যে ব্যক্তি হামলার নেতৃত্ব দিয়েছিল তাকে শনাক্ত করা হয়েছে, এক শীর্ষ সন্ত্রাস দমন কর্মকর্তা আজ বলেছেন। ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের (ডিএমপি) কাউন্টার টেরোরিজম অ্যান্ড ট্রান্সন্যাশনাল ক্রাইম (সিটিটিসি) ইউনিটের প্রধান আসাদুজ্জামান বলেন, তদন্তের স্বার্থে ওই ব্যক্তির নাম এখনই প্রকাশ করা যাচ্ছে না। সব সাম্প্রতিক খবরের জন্য, ডেইলি স্টারের গুগল নিউজ চ্যানেল অনুসরণ করুন। আজ সন্ধ্যায় ডিএমপি মিডিয়া সেন্টারে এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি বলেন, "আমরা এই হামলার নেতাকে শনাক্ত করেছি। তার কয়েকজন সহযোগীকেও শনাক্ত করা হয়েছে। তবে তদন্তের স্বার্থে তাদের নাম প্রকাশ করা যাচ্ছে না।" এর আগে সকালে ডিএমপির গোয়েন্দা পুলিশের অতিরিক্ত কমিশনার মোহাম্মদ হারুন অর রশিদ সাংবাদিকদের বলেন, গতকাল থেকে ফাঁসির দণ্ডপ্রাপ্ত দুই আসামিকে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর নজরদারিতে রাখা হয়েছে। তিনি আরো বলেন, আমরা যেকোনো সময় তাদের গ্রেফতার করতে পারব। লেখক অভিজিৎ রায়কে হত্যার দায়ে মৃত্যুদণ্ডপ্রাপ্ত সেনাবাহিনীর বরখাস্তকৃত মেজর সৈয়দ জিয়াউল হক ওরফে মেজর জিয়া পুলিশের হেফাজত থেকে জঙ্গিদের ছিনিয়ে নেওয়ার পরিকল্পনা করেছিলেন এবং পরিকল্পনা করেছিলেন, তিনি বলেছিলেন। ডিবি প্রধান আরো বলেন, "এই ঘটনার পর ২০ জনের বিরুদ্ধে মামলা হয়েছে। আমরা তাদের সবাইকে গ্রেপ্তারের চেষ্টা করছি।" ঢাকার মুখ্য বিচারিক হাকিম আদালত প্রাঙ্গণ থেকে অজ্ঞাতনামা ব্যক্তিরা পুলিশ সদস্যদের ওপর হামলা চালিয়ে নিষিদ্ধ জঙ্গি সংগঠন আনসার আল ইসলামের দুই সদস্যকে ছিনিয়ে নিয়ে গেছে। মৃত্যুদণ্ডপ্রাপ্ত আসামি ---মইনুল হাসান শামীম ওরফে সামির ওরফে ইমরান এবং আবু সিদ্দিক সোহেল-সহ ১২ জঙ্গিকে আদালত চত্বর থেকে নিয়ে যাচ্ছিল মাত্র চারজন। ২০১৫ সালে জাগৃতি পাবলিকেশন্সের প্রকাশক দীপনকে হত্যার দায়ে গত বছরের ফেব্রুয়ারিতে ঢাকার সন্ত্রাসবিরোধী ট্রাইব্যুনাল যে আট জঙ্গিকে মৃত্যুদণ্ড দেয় তাদের মধ্যে এই দুই আসামি ছিলেন।
alo
alo
alo
alo
alo